City Today News

monika, grorius, rishi

ইয়েচুরি প্রচারে খুশি, অথচ সিপিএম বড় শূন্য

Yechury 2

লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গে সিপিএমের প্রচার এবার ভালো হয়েছে বলে খুশিতে ডগমগ দলের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি। কিন্তু সেই প্রচার যে কোনও কাজে লাগেনি অর্থাৎ, কংগ্রেসের সঙ্গে সমঝোতা করেও এবার তারা বড় শূন্যই পেয়েছে, সেব্যাপারে নিরুত্তর রইলেন তিনি। প্রশ্ন উঠেছে, যে প্রচারে দল একটিও আসনে জিততে পারেনি, তাকে সার্থক বলা যায় কি? শতাংশের হিসাবে ভোট প্রাপ্তির হারও আগের মতোই নগণ্য। এবারের ভোটে নতুন প্রজন্মকে নামিয়ে লাভ তুলতে পারেনি সিপিএম। তাদের অনেক তরুণ মুখ এবারের নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছিলেন। কিন্তু কেউই উল্লেখযোগ্য ছাপ ফেলতে পারেননি। অনেক তরুণ প্রার্থীর জামানত পর্যন্ত জব্দ হয়েছে। অথচ ইয়েচুরি এই তরুণ প্রজন্মকে নিয়ে আশাবাদী। তিনি বাংলায় নতুন পার্টি পেয়েছেন বলে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন, যে নতুন পার্টির বাংলায় ভরাডুবি হয়েছে। অনেকেই মনে করেন, দীর্ঘদিন ধরে সিপিএম নেতৃত্ব পক্ককেশের নেতাদের দিয়ে দলে ছড়ি ঘুরিয়ে গিয়েছে। আজ হঠাৎ তরুণ প্রজন্মকে সামনে আনলে তাঁরা এই গুরুভার সামলাবেন কী করে? দু’হাজার এগারো সালের বিধানসভা নির্বাচনে চৌত্রিশ বছরের রাজ্যপাট শেষ হওয়ার পর সিপিএম নেতৃত্ব হঠাৎ আবিষ্কার করেন, নেতৃত্বে তরুণদের তুলে আনা প্রয়োজন। কিন্তু আজকের যে রাজনীতি, তার সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে গেলে নতুন দিশা দেখানো প্রয়োজন। সেটার অনুপস্থিতি মানুষ টের পাচ্ছে। তাছাড়া কংগ্রেসের সঙ্গে আসন সমঝোতা করে সিপিএমের কী এমন লাভ হচ্ছে, সেই প্রশ্নও উঠছে। কেউ কেউ মনে করেন, কংগ্রেসের ভোটও পাচ্ছে না, আবার সিপিএমের অনেকে একসময়ের প্রধান শত্রুর সঙ্গে সমঝোতার জন্য মুখ ফিরিয়ে নিয়েছেন।
সিপিএম কথায় কথায় পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির উত্থানের জন্য তৃণমূলকে দায়ী করে থাকে। কিন্তু কিছুতেই নিজেদের ব্যর্থতা স্বীকার করে না। কেউ কাউকে জায়গা করে দেয় না। জায়গা করে নিতে জানতে হয়। বিজেপি সেটাই করেছে। সিপিএমের শূন্যস্থান ভরাট করতে এগিয়ে এসেছে তারা। তাই তিন থেকে তাদের আসন সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছিল সাতাত্তরে। আর সিপিএম পেয়েছে শূন্য।
আগামী তেইশ থেকে পঁচিশ আগস্ট নদীয়ার কল্যাণীতে সিপিএমের রাজ্য কমিটির বর্ধিত অধিবেশনে বাংলায় ভোটের ফল নিয়ে পর্যালোচনা হবে এবং নতুন কর্মসূচি ঠিক হবে। আপাতত সিপিএমের নেতা-কর্মী-সমর্থকরা সেদিকেই তাকিয়ে আছেন। কিন্তু দলের অনেকে মন করেন, নতুন কোনও দিশা দেখাতে না পারলে বিশেষ লাভ হবে না।

City Today News

ghanty
monika and rishi

Leave a comment